বহুমুখী শিল্পস্রষ্টা ড. খান আসাদুজ্জামান রচিত “ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের মহাকাব্য” গ্রন্থের মোড়ক  উন্মোচন

0
108

রুপসীবাংলা ৭১

গতকাল ২২ আগস্ট ২০২২, বাংলাদেশ সচিবালয়ের তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে অনাড়ম্বর ও জাঁকজমকপূর্ণ ভাবে বহুমুখী শিল্পস্রষ্টা ড. খান আসাদুজ্জামান রচিত “ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের মহাকাব্য” গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন হয়।সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী ড. হাসান মাহমুদ এমপি।বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের মহাপরিচালক স. ম. গোলাম কিবরিয়া, কবি, কথাশিল্পী ও সমাজকর্মী বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মজিবুর রহমান মজনু, বার্তা সম্পাদক দৈনিক বাংলাদেশ সমাচার।উক্ত সভায় সভাপতিত্ব করেন সফেন ফাউন্ডেশনের ভাইস চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ পুলিশের সাবেক ডিআইজি র মুক্তিযোদ্ধা মো. গোলাম কিবরিয়া ভূঁইয়া’এছাড়াও সফেন পরিবারের সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের মহাকাব্য বইটিতে স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশের মহান স্থপতি, মহাকালের মহানায়ক, জাতরপিতা বঙ্গবন্ধুর শিশুকাল, ছাত্রজীবন,  রাজনৈতিক জীবন, ত্যাগ’তিতিক্ষা, জেল’জীবন, বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের ত্যাগ, শিশু রাসেলের শেষ আকুতি, ছয়দফা, স্বাধীনতা আন্দোলনের সূত্রপাত, চুড়ান্ত বিজয় অর্জন তথা সর্বোপরি তাঁর স্বর্ণোজ্জ্বল’নেতৃত্ব প্রদানের শ্বেত.সোপানের আলোকে রচিত “ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের মহাকাব্য” গ্রন্থটি একটি বিষয়ভিত্তিক, গবেষণামূলক, তথ্যবহুল ও ব্যতিক্রমধর্মী কাব্য প্রয়াস.কথাসাহিত্য বা জীবনালেখ্য রচনায়, বঙ্গবন্ধুর জীবনীর উপর ইতোপূর্বে বহু গ্রন্থ রচিত হলেও একজন কবির রচনায় কবিতার মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর সমগ্র জীবনের গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়সমূহ অত্যন্ত মৌলিকতায় একই গ্রন্থে কবিতা, গান ও আলোকচিত্রের চিত্রায়িত করার এই অনন্য প্রয়াস সম্ভবত বাংলাদেশ এটিই প্রথম।

গ্রন্থটিতে মোট ৬১ টি কবিতা ও গান স্থান পেয়েছে’কোন বিশ্ববরেণ্য নেতৃত্বের জীবনভিত্তিক কাব্য রচনায় বহুমুখী শিল্প প্রতিভাধর কবি ড. খান আসাদুজ্জামান যেভাবে স্বতঃস্ফূর্ত হয়ে গণমানুষের মুক্তির এই মহানায়কের জীবনালেখ্য সহজ’সরল ও সাবলীল ভাষায় তুলে ধরেছেন তা নিঃসন্দেহে তাঁর একটি মহৎ, অভিনব, সাহসী ও ব্যতিক্রমধর্মী কাব্য প্রয়াস। 

মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. হাসান মাহমুদ এমপি, বঙ্গবন্ধুর জীবন, রাজনীতি ও বঙ্গবন্ধুরঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণ নিয়ে অসাধারণ.এই’কাব্যগ্রন্থ’রচনার জন্য ড. খান আসাদুজ্জামানকে অভিনন্দন ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন । 

তিনি আরও বলেন, প্রকৃতপক্ষে বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষণ বিশ্বের ইতিহাসে একটি অনন্য ও কালজয়ী ভাষণ। জাতিসংঘে বিশ্ব নেতাদের ভাষণের তালিকায় ৭ই মার্চের ভাষণ একটি অনন্য দলিল হিসেবে ইউনিস্কো কর্তৃক স্বীকৃত। এবং তিনি এ গন্থটির পাঠকপ্রিয়তা ও সফলতা কামনা করে তাঁর বক্তব্য শেষ করেন ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে