অগ্নিঝরা মার্চে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সমাবেশ, আলোচনা ও স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠিত

0
90

নিজস্ব প্রতিনিধি:-বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ৪টি বৃহৎ সংগঠনের উদ্যোগে- অদ্য ১৯ মার্চ ২০২২ইং তারিখ সকাল ১১ টায় ঢাকাস্থ সচিবালয় লিংক রোড, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় এর নিচে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের আলোচনা ও স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলওয়াত পাঠ করেন বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তান জনাব আবদুল মোমিন। পরবর্তীতে জাতীয় সংগীত পরিবেশন কালে সকলে দাড়িয়ে সম্মান প্রদর্শন করেন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন- বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল কমান্ডে সাবেক নির্বাচিত ভাইস চেয়ারম্যান, বর্তমানে বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানী লিঃ এর পরিচালক এবং ন্যাশনাল এফ. এফ. ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ড. এস. এম. জাহাঙ্গীর আলম। তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন- দীর্ঘদিন যাবৎ বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সেবামূলক প্রতিষ্ঠান ন্যাশনাল এফ. এফ. ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও আগামী প্রজন্মের কল্যাণে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় সামাজিক কার্যক্রম চালিয়ে আসছে। তারই ধারাবাহিকতা রেখে অগ্নিঝরা মার্চ উদযাপন উপলক্ষে আলোচনা ও স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

আমরা দীর্ঘদিন যাবৎ মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে বিকশিত এবং আগামী প্রজন্মের মাঝে বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস তুলে ধরার উদ্দেশ্যে- বিভিন্ন সামাজিক কর্মকান্ডের মাধ্যমে কাজ করে আসছি। এছাড়া ঢাকা এবং ঢাকার বাহিরে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে- রচনা প্রতিযোগিতার আয়োজন করে আসছি।অনুষ্ঠানে নেতৃবৃন্দের মধ্যে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন- সম্মিলিত জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা ফ্রন্টের চেয়ারম্যান- বীর মুক্তিযোদ্ধা জি. কে. বাবুল, মুক্তিযোদ্ধা ঐক্য মঞ্চ এর চেয়ারম্যান- রুহুল আমিন মজুমদার এবং মুক্তিযোদ্ধা ঐক্য ফোরাম ৭১ এর চেয়ারম্যান- খ. ম. আমীর আলী। প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন- বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানী লিঃ এর চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ এবং খেতাবপ্রাপ্ত বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল ওহাব, বীর প্রতিক ও সৈয়দ সদরুজ্জামান হেলাল, বীর প্রতীক। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে জ্ঞানগর্ব বক্তব্য উপস্থাপন করেন। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের বিএসসিএল) এর চেয়ারম্যান প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন- বঙ্গবন্ধু আমাদের বাঙ্গালী জাতির কর্ণধার, তার নেতৃত্বে এই দেশ স্বাধীন হয়। বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযোদ্ধাদের আদর্শ বাংলার বুকে প্রতিষ্ঠিত করার জন্য এই প্রজন্মের সন্তানদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে। আমরা মুক্তিযোদ্ধারা জীবনের এই ক্লান্তিলগ্নে সর্বসম্মতিক্রমে এবং বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ঐক্যের মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে এক হয়ে কাজ করবো।পরিশেষে- আজকের সভার সভাপতি ড. এস. এম. জাহাঙ্গীর আলম উপস্থিত সকল বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সুধী মন্ডলীগণকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষনা করেন

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে